মঙ্গলবার, ২৮ মার্চ ২০২৩, ০২:৩৯ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
ঠাকুরগাঁওয়ে বাসন্তী পূজা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে সকল প্রকার প্রস্তুতি সম্পন্ন ঠাকুরগাঁওয়ে স্বাধীনতা দিবস ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা তথ্য সংগ্রহে সাংবাদিকদের বাধা প্রদান ও অসৌজন্যমুলক আচারণ ঠাকুরগাঁওয়ে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ভিজিডি কার্ড বরাদ্দে দুর্নীতির অভিযোগ ঠাকুরগাঁওয়ে কলম কথা’র প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন ঠাকুরগাঁওয়ে ডোমিনো স্কুলে জাতীয় শিশু দিবস পালন প্রতিমা ভাঙচুরের ঘটনাস্থল পরিদর্শনে জাতিসংঘ মাইনোরিটি ওয়াচ ও মানবাধিকার সংগঠনের চেয়ারম্যান ঠাকুরগাঁওয়ে একুশের প্রথম প্রহরে সর্বস্তরের ফুলেল শ্রদ্ধা ঠাকুরগাঁওয়ে দু’লাখ শিশু পাবে ভিটামিন ‘এ’প্লাস ক্যাপসুল ঠাকুরগাঁও কেন্দ্রীয় শ্রী শ্রী শ্মশান কালী মাতা মন্দিরে শিবরাত্রি পূজা অনুষ্ঠিত

বিষপান করা মাদরাসা ছাত্রের দায়িত্ব নিলেন ব্যারিস্টার সুমন

নিজস্ব প্রতিনিধি
  • হালনাগাদ সময় : সোমবার, ১২ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ৭১ বার

ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার লোকমান (১২) নামে এক মাদরাসাছাত্র ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমনের ফুটবল খেলা দেখতে যেতে না পেরে পরিবারের সাথে অভিমান করে বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। বর্তমানে ওই কিশোর বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আছে।

ব্যারিস্টার সুমনের খেলা দেখতে যেতে না পারায় বিষপানের বিষয়টি তাৎক্ষণিকভাবে আলোচিত হয়। বিষয়টি জানা মাত্রই সদলবলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যান ব্যারিস্টার সুমন।

রোববার (১১ সেপ্টেম্বর) রাত ১১টার দিকে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ওই কিশোরকে দেখতে যান ব্যারিস্টার সুমন। এসময় তিনি কিশোরের দাদির হাতে নগদ ১০ হাজার টাকা তুলে দেন এবং কিশোরের চিকিৎসা, পড়াশোনা ও খেলাধুলার সকল দায়িত্ব নেন তিনি।

রোববার বিকেলে ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈল ডিগ্রী কলেজ মাঠে মুখোমুখি হয় ব্যারিস্টার সুমন ফুটবল একাডেমি ও রানীশংকৈলের সোহেল রানা ফুটবল একাডেমি।

জানা যায়, ব্যারিস্টার সুমন ফুটবল একাডেমির ফুটবল খেলা দেখতে যেতে লোকমান দুই’শ টাকা চেয়েছিল তার পরিবারের কাছে। খেলা দেখতে যেতে তাকে পরিবারের কেউ টাকা না দেওয়ায় অভিমানে সন্ধ্যায় লোকমান বিষপান করলে পরিবারের সদস্যরা তাকে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

লোকমান উপজেলার আমজানখোর ইউনিয়নের রত্নাই বারসা গ্রামের আব্দুল জব্বারের ছেলে। বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার সঞ্জিব কুমার রায় জানান, বর্তমানে লোকমানের শারীরিক অবস্থা ভালো আছে।

ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন সাংবাদিকদের বলেন, লোকমানের চিকিৎসার জন্য বর্তমানে ১০ হাজার টাকা তার পরিবারকে দিয়েছি ও পরবর্তীতে তার পড়াশোনার জন্য ও খেলাধুলার খরচ আমাদের একাডেমি বহন করবে।

এ ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করে ব্যারিস্টার সুমন বলেন, আসলে এই বয়সে ছেলে-মেয়ে গুলো একটু অভিমানী হয়। কিন্ত তাও এ বিষয়টিতে আমার খুব খারাপ লেগেছে। এটা তার পরিবারেরও দোষ না। কারণ তার পরিবার খুব দরিদ্র তাই টাকা দিতে পারেনি। আমরা যদি সুস্থ ধারার কাজ করে সমাজটাকে গড়তে পারি ও ভালো কাজ করি তাহলে অবশ্যই মানুষের সারা পাওয়া যাবে।

ঠাকুরগাঁওয়ের মানুষের প্রশংসা করে তিনি বলেন, ঠাকুরগাঁওয়ে এসে আমার এতো ভালো লেগেছে যে আমি অনেক জেলা ঘুরে বেড়িয়েছি কিন্তু ঠাকুরগাঁওয়ের মতো এতো ভালো মানুষ কোথাও দেখিনি ও পাইনি। যেভাবে সিলেটে বন্যার সময় ঠাকুরগাঁওয়ের মানুষ বন্যার্তদের পাশে দাঁড়িয়েছিল তেমনি ভাবে এখানকার মানুষ কোনো বিপদে পড়লে আমরা সিলেটবাসীও আপনাদের পাশে দাঁড়াবো। আর আপনারা ঠাকুরগাঁওয়ের মানুষ যে ভালোবাসা দেখিয়েছেন তার জন্য আমি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
© ২০২২ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। জার্নাল আই ২৪ |
themesba-lates1749691102